Facebook Google Plus Twiter YouTube
   
ব্রাজিল থেকে ভারতে তিলের বাজারে প্রবেশের অনুমোদনের ঘোষণা দিয়েছেন কেন্দ্রীয় কৃষিমন্ত্রী , ভারত থেকে ভুট্টার বীজের বাজার ব্রাজিল
Burue Report, 24/01/2020, New Delhi

বিভিন্ন দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যের সুযোগ, আগ্রহ এবং বিষয়গুলি নিয়ে আলোচনা করতে কেন্দ্রীয় কৃষি ও কৃষক কল্যাণ মন্ত্রী, গ্রামোন্নযন এবং পঞ্চায়েতরাজ মন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র সিং তোমার আজ নয়াদিল্লির কৃষিভবনে ব্রাজিলের কৃষিক্ষেত্র, প্রাণিসম্পদ ও খাদ্য সরবরাহ বিষয়ক মন্ত্রী টেরেজা ক্রিস্টিনা কোরিয়া দা কোস্টা ডায়াস এর সাথে দ্বি-পাক্ষিক একটি বৈঠক করেছেন৷ উভয় মন্ত্রী জানিয়েছেন, ব্রাজিল এবং ভারত দুই রাষ্টে্র কাছেই কৃষি হলো অগ্রাধিকার এবং এই কৃষি ও কৃষির সাথে যুক্ত ক্ষেত্রে দ্বি-পাক্ষিক সহযোগিতাকে আরও শক্তিশালী করে তোলার ব্যাপারে সম্মত হয়েছে দউ দেশ৷ ভারত ও ব্রাজিলের মধ্যেকার এই দ্বি-পাক্ষিক শক্তিশালী সম্পর্ক আগামী দিনে আরও শক্তিশালী করে তোলার ব্যাপারে আলোচনা হয়েছে৷ দু'দেশেরই রয়েছে সমান উচ্চাকাঙ্ক্ষা এবং উন্নয়নমূলক চ্যালেঞ্জ, বিশেষত ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকদের জন্য যা দুই দেশকে প্রাকৃতিক অংশীদার করে তোলেছে৷

কৃষিক্ষেত্রে সহযোগিতা আরও নিবিড় করে এবং ভারত ও ব্রাজিলের মধ্যে উষ্ণ, বন্ধুত্বপূর্ণ এবং পারস্পরিক উপকারী সম্পর্কের বিষয়ে আনন্দ প্রকাশ করেছেন শ্রী তোমার৷ তিনি বলেছেন, প্রজাতন্ত্র দিবসের প্রধান অতিথি হিসাবে ব্রাজিলের রাষ্ট্রপতির আগমন এবং কৃষিক্ষেত্র ও সহযোগিতামূলক ক্ষেত্রে পারস্পরিক সহযোগিতার জন্য ব্রাজিলিয়ান কৃষিমন্ত্রীর পৌরহিত্যে উচ্চ স্তরের প্রতিনিধি দলের এই সফর দুই দেশের মধ্যেকার একটি গুরুত্বপূর্ণ সূচক হিসাবে প্রতিপন্ন হয়েছে৷

শ্রী তোমার বলেন, ভারত এবং ব্রাজিলের মধ্যে কৌশলগত অংশীদারিত্ব রয়েছে এবং লাটিন আমেরিকার এই অঞ্চলের সাথে ভারতের দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্ক অত্যন্ত প্রাচীন৷ দুটি বৃহৎ গণতন্ত্র এবং ক্রমবর্ধমান অর্থনীতি হিসাবে ভারত এবং ব্রাজিলের একই রকম আকাঙ্ক্ষা এবং বিকাশমূলক চ্যালেঞ্জ রয়েছে যা আমাদের প্রাকৃতিক অংশীদার করে তোলেছে। এই সম্পর্কটিকে পরবর্তী স্তরে নিয়ে যাওয়ার জন্য উভয় দেশের নেতৃত্বের তীব্র আগ্রহ রয়েছে বলে তিনি যোগ করেছেন। শ্রী তোমার জানান- এই সহযোগিতা কেবল দ্বিপাক্ষিক অঙ্গনে নয়, ব্রিকস এবং আইবিএসএ-এর মক বহুপক্ষীয় অঞ্চলে বিশেষ করে জাতিসঙ্গেও রয়েছে।

শ্রী তোমার আনন্দ প্রকাশ করে বলেন, কৃষিক্ষেত্রে যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের প্রথম সভা গত সপ্তাহে অনুষ্ঠিত হয়েছিল এবং জেডাব্লুজি সভা থেকে উদ্ভূত আগ্রহের প্রধান ক্ষেত্রগুলি ছিল ভারতের প্রাণিসম্পদ এবং কৃষিজ উৎপাদন, বীমা ও ঋণ কার্যক্রমের নীতি বিনিময় এবং অন্যান্য বিভিন্ন নীতিমালা ক্ষুদ্র ও পারিবারিক কৃষকদের জন্য। কৃষিমন্ত্রী ব্রাজিল থেকে ভারতে তিলের বাজারে প্রবেশের অনুমোদনের ঘোষণা দিয়েছেন এবং ভারত থেকে ভুট্টার বীজের বাজার প্রবেশের জন্য ব্রাজিলকে ধন্যবাদ জানান।

শ্রী তোমার বলেন, ২০১৮-১৯ সালে দ্বি-পাক্ষিক বাণিজ্য ১০৪৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলার সম্ভাবনার অনেক নীচে এবং তা উভয় রাষ্টে্র অর্থনীতির জন্য যথেষ্ট শক্তিশালী নয়৷ তবে আগামী বছর ব্রাজিলের সাথে অর্থনীতি শক্তিশালী হবে বলে প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন শ্রী তোমার৷

ব্রাজিলের কৃষিমন্ত্রী মন্ত্রী টেরেজা ক্রিস্টিনা কোরিয়া দা কোস্টা ডায়াস বলেছেন, এটা তার ভারত সফরের দ্বিতীয় দিন এবং তিনি ভারতে দারুন আপ্যায়িত হয়েছেন৷ তিনি জানান- এর আগে যে টেকনিক্যাল টিম এখানে এসেছিল তারা যথেষ্ট শিহরিত হয়েছিলেন৷

তিনি বলেন, উভয় রাষ্টে্র কিছু সাধারণ চ্যালেঞ্জ রয়েছে যারমধ্যে অন্যতম হলো কৃষিতে ব্যাপক সংখ্যক জনসংখ্যার যুক্ত থাকা৷ এদের মধ্যে অধিকাংশই ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক চাষী৷ তিনি জানান-  কৃষিতে দুই দেশের মধ্যে উন্নতি ও অগ্রগতির জন্য আইসিএআর ও আইএমবিআরএপি’র মধ্যে জয়েন্ট ওয়ার্কিং গ্রুপ তৈরি করা হয়েছে৷

 
Accessibility | Copyright | Disclaimer | Hyperlinking | Privacy | Terms and Conditions | Feedback | E-paper | Citizen Service
 
© aajkeronlinekagaj, Agartala 799 001, Tripura, INDIA.