Facebook Google Plus Twiter YouTube
   
এসএমসিএইচে হত গণধলাইয়ে ঘায়েল বহু অত্যাধুনিক আগ্নেয়াস্ত্র-সহ ধৃত দুই জঙ্গি
Burue Report, 03/11/2018, Silchar

অবশেষে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছে গণধলাইয়ের শিকার দুই সন্দেভাজন জঙ্গি। বরাক উপত্যকার কাছাড় জেলাধীন লক্ষ্মীপুর মহকুমার অন্তর্গত জয়পুর থানার হরিনগর বাজার থেকে দুই সন্দেহভাজন জঙ্গিকে অস্ত্রশস্ত্র-সহ আটক করেছিলেন স্থানীয় বাসিন্দারা। তাদের আটক করে গণপিটুনি দেন তাঁরা। থবর পেয়ে সঙ্গে-সঙ্গে ঘটনস্থল হরিনগরে লক্ষ্মীপুরের এসডিপিও এবং এসএসবির দল নিয়ে ছুটে যান কাছাড়ের পুলিশ সুপার রাকেশ রৌশন। সেখান থেকে তাদের রক্তাক্ত সংজ্ঞাহীন দেহ উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য প্রথমে নিকটবর্তী জয়পুর প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু তাদের শরীরিক অবস্থা সংকটজনক বলে পাঠিয়ে দেওয়া হয় শিলচর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল (এসএমসিএইচ)-এ। সেখানে আজ সন্ধ্যারাতের দিকে দুজনেই মৃত্যুবরণ করেছে।

ঘটনার তথ্য দিয়ে পুলিশ সুপার রাকেশ রৌশন জানিয়েছেন, আজ শনিবার সকাল প্রায় ১১-টা নাগাদ হরিনগর বাজারে বনধ সমর্থককারীরা সন্দেহভাজন দুই জঙ্গিকে পাকড়াও করে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। জিজ্ঞাসাবাদে তাদের কথায় বনধ সমর্থককারীদের সন্দেহ জাগে। সঙ্গে-সঙ্গে শুরু হয় বেধড়ক মারপিট। এতে দুই জঙ্গি অচৈতন্য হয়ে পড়ে। খবর পেয়ে তিনি (পুলিশ সুপার রাকেশ রৌশন) লক্ষ্মীপুরের এসডিপিও এবং এসএসবির দল নিয়ে হরিনগর বাজারে উপস্থিত হয়ে উত্তেজিত পিকেটারসদের হাত থেকে দুই জঙ্গিকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য জয়পুর প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে পাঠিয়ে দেন।
তার পর জয়পুর প্রথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রের ডাক্তার দুই সন্দেহভাজন জঙ্গির শারীরিক অবস্থার অবনতি হচ্ছে দেখে এদের শিলচর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। পুলিশ সুপার রাকেশ রৌশন জানিয়েছেন, ধৃত দুই জঙ্গির কাছ থেকে ১-টি ১২ বোরের সিঙ্গল রাইফেল, ২-টি একে ৫৬ রাইফেল, ১-টি চাইনিজ এলএমজি রাইফেল, ২-টি ৫-৫৬ এমএম রাইফেল, ১-টি ২২ পিস্তল, ৩০৮ রাউন্ড ৫.৫৬ এমএম পিস্তলের তাজা গুলি, ৩৬১ রাউন্ড ৭.৬২ তাজা গুলি, ১-টি চাইনিজ গ্রেনেড উদ্ধার করা হয়েছে।

এদিকে স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, আজ ১২ ঘণ্টার বরাক বনধ থাকায় ডিমা হাসাও জেলার জিনামভ্যালি থেকে দুই সন্দেহভাজন জঙ্গি অস্ত্রশস্ত্র-সহ নেমে এসে হরিনগর বাজারে গাড়ির অপেক্ষায় দাঁড়িয়েছিল। তখন হরিনগর বাজারে বনধ সমর্থককারীরা ওই দুই ব্যক্তিকে জিজ্ঞাসাবাদ করে উত্তমমধ্যম দিতে শুরু করেন। এতে দুই জঙ্গির অবস্থা শোচনীয় হয়ে পড়ে।
এদিকে এ ঘটনার পর পুলিশ ও নিরাপত্তা বাহিনী সমগ্র এলাকাজুড়ে তল্লাশি অভিযান শুরু করেছে বলে কাছাড়ের পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে। এবার তাদের মৃত্যুর পর কী ব্যবস্থা নেওয়া হবে সে সম্পর্কে এখনই কিছু বলেননি পুলিশ সুপার।

 
Accessibility | Copyright | Disclaimer | Hyperlinking | Privacy | Terms and Conditions | Feedback | E-paper | Citizen Service
 
© aajkeronlinekagaj, Agartala 799 001, Tripura, INDIA.